ছেলে, মেয়ে ও নাতির সঙ্গে আলিম পাস করেছেন মো. সিরাজুল ইসলাম

0
113
ছেলে, মেয়ে ও নাতির সঙ্গে আলিম পাস করেছেন মো. সিরাজুল ইসলাম
ছেলে, মেয়ে ও নাতির সঙ্গে আলিম পাস করেছেন মো. সিরাজুল ইসলাম

২০২১ সালের এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় ছেলে, মেয়ে ও নাতির সঙ্গে আলিম পাস করেছেন মো. সিরাজুল ইসলাম (৫০)। তাঁর বাড়ি খাগড়াছড়ির মাটিরাঙ্গা উপজেলার তাইন্দং ইউনিয়নে। এ বয়সে আলিম পাস করায় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম এবং প্রতিবেশীদের শুভেচ্ছায় সিক্ত হচ্ছেন তিনি।

আজ রোববার এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফলাফল ঘোষণা করা হয়। এতে খাগড়াছড়ি ইসলামিয়া সিনিয়র আলিম মাদ্রাসা থেকে জিপিএ–২.১৪ পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছেন সিরাজুল ইসলাম।

সিরাজুল বলেন, ‘আমার ছয় মেয়ে, এক ছেলে। এবার পরীক্ষায় ছোট মেয়ে মাহমুদা সিরাজ খাগড়াছড়ি সরকারি কলেজ থেকে মানবিক বিভাগে জিপিএ–৪.১৭ পেয়েছে। একমাত্র ছেলে হাফেজ নেসার উদ্দিন আহম্মেদ চট্টগ্রাম বাইতুশ শরফ কামিল মাদ্রাসা থেকে পেয়েছে জিপিএ–৪.০০। বড় মেয়ের ঘরের নাতি নাজমুল হাসান খাগড়াছড়ি সরকারি কলেজ থেকে মানবিক বিভাগে জিপিএ–৪.৬৭ পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছে।

পাসের প্রতিক্রিয়ায় সিরাজুল ইসলাম বলেন, ‘১৯৮৭ সালে দাখিল পাস করেছি। বাড়ির আশপাশে উচ্চশিক্ষার ব্যবস্থা ছিল না। তা ছাড়া ইচ্ছা থাকার পরও সংসারের দায়িত্ব বাড়ায় পড়াশোনার দিকে যেতে পারিনি। কয়েক বছর ধরে আমার ছেলে, মেয়ে ও নাতি আমাকে পড়ালেখা শুরু করার জন্য উৎসাহ দিতে থাকে। আমার আগ্রহ ও পরিবারের উৎসাহে খাগড়াছড়ি গিয়ে অধ্যক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করি। পরীক্ষার আগে আমার ব্যাচের শিক্ষার্থী ও শিক্ষকেরা অনেক সহযোগিতা করেছেন।

সিরাজুল ইসলাম আরও বলেন, ‘অপূর্ণ ইচ্ছা পূরণ করতে পেরে এবং আমাকে দেখে অন্যরাও উৎসাহ পাবে, এটা ভেবে ভালো লাগছে। ভবিষ্যতেও পড়াশোনা এগিয়ে নেব।

সিরাজুল ইসলাম ১৯৯২ থেকে ১৯৯৭ সাল পর্যন্ত মাটিরাঙ্গার তাইন্দং ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সদস্য ছিলেন। ২০০৩ থেকে ২০১১ সাল পর্যন্ত চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি বর্তমানে ব্যবসা করছেন।

বাংলার মুখ:

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here