কুড়িগ্রামের করলা বিভিন্ন জেলার চাহিদা মেটাচ্ছে

0
35
কুড়িগ্রামের করলা বিভিন্ন জেলার চাহিদা মেটাচ্ছে
কুড়িগ্রামের করলা বিভিন্ন জেলার চাহিদা মেটাচ্ছে

আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় কুড়িগ্রামের বিভিন্ন উপজেলায় এ বছর করলার বাম্পার ফলন হয়েছে। ফলে জেলার চাহিদা মিটিয়ে করলা যাচ্ছে রাজশাহী, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, ঢাকা, যশোর, সিলেটসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে। দাম ভালো পেয়ে খুশি করলা চাষিরা।

কুড়িগ্রাম কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে, জেলায় এ বছর ২৮৭ হেক্টর জমিতে করলার আবাদ হয়েছে। তার মধ্যে শুধু দেশি করলার আবাদ হয়েছে ৮৭ হেক্টর জমিতে। বাকি জমিতে হাইব্রিড জাতের করলার চাষ হচ্ছে।

চাষিদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, প্রতি বিঘা জমিতে করলা চাষ করতে ১০-১২ হাজার টাকা খরচ হয়। আর করলা বিক্রি হচ্ছে ৪০-৫০ হাজার টাকা। বর্তমান বাজারে প্রতি মণ করলা ১ হাজার ২০০ থেকে ১ হাজার ৭০০ টাকা পর্যন্ত বিক্রি হচ্ছে।

জেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, ফুল আর করলায় ভরে গেছে মাঠ। জমি থেকে করলা উঠাতে ব্যস্ত সময় পার করছেন কৃষক। অনেকের বাড়ি থেকে করলা সংগ্রহ করছেন ছোট ছোট পাইকার। কেউবা আবার নিজেই আড়তে বিক্রি করছেন।

ফুলবাড়ী উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা নিলুফা ইয়াসমিন বলেন, উপজেলায় এবার ১৩০ হেক্টর জমিতে করলা চাষ হয়েছে। আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় এবার করলার বাম্পার ফলন হয়েছে। কৃষি বিভাগ কৃষকদের ভালো ফলনের জন্য সব সময় পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছে।

ফুলবাড়ী উপজেলার ফুলবাড়ী ইউনিয়নের আখটারী ও নাওডাঙ্গা ফুলেরপাড় এলাকার করলা চাষি আজিজুল হক ও মোস্তফা বলেন, এ বছর আবহাওয়া ভালো থাকায় করলার বাম্পার ফলন হয়েছে। দামও ভালো পাওয়া যাচ্ছে। ভালো দাম পাওয়ায় আমরা উৎপাদিত করলা পাশের আড়তে বিক্রি করছি।

কুড়িগ্রাম কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মো. আব্দুল রশিদ জানান, কুড়িগ্রামে ২৮৭ হেক্টর জমিতে করলার আবাদ হয়েছে। করলার বিভিন্ন জাতের মধ্যে শুধু উচ্ছে ৮৭ হেক্টর জমিতে চাষ হয়েছে। ফলনও ভালো হয়েছে।

বাংলার মুখ ডেক্স/

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here