‘ইসরাইলকে না বলায় আয়োজক থেকে মালোয়েশিয়া বাদ’

0
6

আন্তর্জাতিক ডেক্সঃ প্যারা সুইমিং চ্যাম্পিয়নশিপে ইসরাইলি সাঁতারুদের অংশগ্রহণে নিষেধ করায় মালয়েশিয়া আয়োজক হতে পারবে না। আন্তর্জাতিক প্যারালিম্পিক কমিটি মালোশিয়াকে আয়োজক কমিটি থেকে বাদ দেয়। ২০১৯ সালে এটি মালোশিয়ায় হওয়ার কথা ছিল।

তবে ২০২০ সালের টোকিও প্যারালম্পিকের কোয়ালিফায়ার চ্যাম্পিয়নশিপ ২৯ জুলাই থেকে ৪ আগস্টের মধ্যে কুচিংয়ে অনুষ্ঠিত হবে। রোববার আইপিসি জানায়, তবে এটি যথাসময়ে অনুষ্ঠিত হবে।

জুলাইয়ের জন্য নির্ধারিত এ প্যারা সুইমিং চ্যাম্পিয়নশিপের নতুন আয়োজক কারা হতে যাচ্ছে, সে বিষয়ে অবশ্য এখনো সিদ্ধান্ত জানায়নি কমিটি। এছাড়া এ ব্যাপারে মালয়েশিয়ারও কোনো মন্তব্য মেলেনি।

বিষয়টিকে ‘সংশ্লিষ্টদের প্রয়োজনীয় সহায়তা দিতে ব্যর্থতা’ হিসেবে চিহ্নিত করে প্যারালিম্পিক কমিটির পক্ষ থেকে বলা হয়, ‘সক্ষম সব ক্রীড়াবিদ ও জাতি যেন প্রত্যেক বৈশ্বিক প্রতিযোগিতায় কোনো বৈষম্য ছাড়াই নির্বিঘ্নে ও নিরাপদে অংশ নিতে পারেন, তা নিশ্চিত করা উচিত।

আর যখন স্বাগতিকরাই কোনো নির্দিষ্ট জাতির ক্রীড়াবিদদের রাজনৈতিক কারণে ছেঁটে ফেলতে চান, তখন নতুন স্বাগতিক খোঁজা ছাড়া আমাদের কোনো বিকল্প থাকে না।’

মালোয়েশিয়া সংখ্যাগরিষ্ট মুসলিম দেশ। ইহুদিবাদী ইসরাইলের সঙ্গে মালয়েশিয়ার কূটনৈতিক সম্পর্ক নেই এবং দেশটির জনগণ ও সরকার সব সময় আন্তর্জাতিক অঙ্গনে ফিলিস্তিনি জাতির প্রতি সমর্থন জানিয়ে এসেছে।

এর আগে মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মাদ বলেছেন, আগামী গ্রীষ্মে তার দেশে অনুষ্ঠেয় বিশ্ব প্যারা সুইমিং চ্যাম্পিয়নশিপ খেলতে ইসরাইলি ক্রীড়াবিদদের মালয়েশিয়ায় প্রবেশ করতে দেয়া হবে না।

মাহাথির বলেন, ইহুদিবাদী ইসরাইলের দমনপীড়নের মোকাবিলায় ফিলিস্তিনি জনগণের প্রতি সমর্থন জানানো মালয়েশিয়ার অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ নীতি। এই নীতির আলোকে চলতি বছর মালয়েশিয়ায় অনুষ্ঠেয় ওয়ার্ল্ড প্যারা সুইমিং চ্যাম্পিয়নশিপে অংশ নিতে ইসরাইলি সাঁতারুদের ভিসা দেয়া হবে না।

মালয়েশিয়ার কুচিং শহরে আগামী ২৫ জুলাই বিশ্ব প্যারা সুইমিং চ্যাম্পিয়নশিপ শুরু হয়ে তা ৪ আগস্ট পর্যন্ত চলার কথা ছিল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here